নেতৃত্বের প্রাথমিক বোঝাপড়া


লেখকঃ ড. মুনির উদ্দিন আহমেদ (বাদল)

ক্যাটাগরিঃ আত্ম-উন্নয়ন

প্রকাশের সালঃ ২০১৭

প্রচ্ছদ অলং‍করণঃ মোঃ আলেক হোসাইন

মূল্যঃ ২৫০

আইএসবিএন নংঃ 978-984-929959-4-5

সংস্করণঃ ২য়

মলাটঃ হার্ডকভার

আঁধার রাতের মুসাফির অনুসন্ধিৎসু চোখে শুধুই আলো খুঁজে ফিরে। কাফেলাকে মঞ্জিলে পৌঁছাতে আলোক মশাল তখন অনিবার্য দিশা। নিকষ আঁধারের দুনিয়া এখন বড্ড দিশেহারা। মুক্তি কোথায়? টলোমলো জাহাজকে কে তীরে ভিড়াবে? আজ বড় প্রয়োজন একঝাঁক দক্ষ নাবিকের। প্রত্যাশিত নাবিকদের উদ্দ্যেশ্যে ‘নেতৃত্বের প্রাথমিক বোঝাপড়া’



বইটির কয়েক পৃষ্ঠা পড়ুন


 Comments 3 comments

  • Omarfaruq Abdullah says:

    বই রিভিউ : নেতৃত্বের প্রাথমিক বোঝাপড়া
    লেখক : ড. মুনির উদ্দিন আহমেদ (বাদল)
    প্রকাশনী : গার্ডিয়ান পাবলিকেশন্স
    রিভিউ লিখেছেন: Omarfaruq Abdullah

    আলোচ্য বিষয় :
    বইয়ের নামেই রয়েছে আলোচ্য বিষয়। তাছাড়াও লেখক নিজে বইয়ের নামের নিচে ছোট বর্ণে লিখে দিয়েছেন “পারিবারিক, পেশাগত, সামাজিক ও রাজনৈতিক জীবনের জন্য”। অর্থাৎ নেতৃত্ব দেয়া ও নেতৃত্ব অর্জনের ক্ষেত্রে বিশেষকরে উল্লিখিত ক্ষেত্রসমূহে সফলতার সাথে নেতৃত্ব দেওয়ার জন্য বইটি বিশেষ ভূমিকা রাখবে।

    সূচীপত্রের আলোকে :
    বইটিতে একটি লম্বা সূচীপত্র রয়েছে। বোল্ড বা মোটা অক্ষরে রয়েছে মূল পর্ব অর্থাৎ অধ্যায়ের নাম এবং এর অধীনে রয়েছে অনুচ্ছেদ বা আলোচ্য বিষয়ের নাম।

    এক. নেতৃত্ব কী এবং কেন?
    লেখক এই শিরোনামে নেতৃত্ব সম্পর্কে প্রাথমিক ধারণা দিয়েছেন। বিশেষ করে নেতা কে? নেতৃত্ব কি? দায়িত্ব কি? ইত্যাদী বিষয়ে বেশ উপাদানমূলক আলোচনা করেছেন।

    দুই. নেতার মৌলিক দায়িত্ব
    এখানে সুনির্দিষ্টভাবে নেতার মৌলিক দায়িত্বের কথা বলা হয়েছে। বিশেষ করে একজন টিম লিডারের করণীয় ও সুদূর প্রসারী চিন্তার কথা বলা হয়েছে।

    তিন. নেতৃত্বের উপাদান
    এই পর্বে এসে লেখক একজন নেতার দক্ষতা-গুণাগুণ ও মূল্যবোধ নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা করেছেন। বিশেষ করে করণীয়, অর্জনীয় ও বর্জনীয় গুণাবলীর কথা বিস্তারিত আলোচনা করা হয়েছে। এই পর্বটি আমার কাছে বিশেষ গুরুত্ববহ মনে হয়েছে।

    চার. নেতৃত্বের প্রভাব উৎস
    এই পর্বে এসে নেতৃত্বের উৎস সম্পর্কে এবং নেতৃত্বের মৌলিক বিষয় সম্পর্কে আলোচনা করা হয়েছে।

    পাঁচ. নেতৃত্বের স্তর
    বিশেষ করে কর্মক্ষেত্রে ও সামাজিক ক্ষেত্রে কিভাবে স্তর বিন্যাস হয় এবং সেখানের নেতৃত্ব কিভাবে সামনের দিকে এগিয়ে নিতে হয়, এই ব্যাপারে সবিস্তারে আলোচিত হয়েছে এই পর্বে।

    ছয়. নেতৃত্বের ধরণ, পরিণতি ও ফলাফল
    এখানে লেখক অতীত ও বর্তমানকালীন বিভিন্ন নেতৃত্বের উপর বিশ্লেষণ করে ধরণ, পরিণতি ও ফলাফল সম্পর্কে সিদ্ধান্ত দিয়েছেন। তবে নেতৃত্বের আরো ধরণ নিয়ে এখানে আলোচনা হতে পারত।

    সাত. বিভিন্ন পেশায় নেতৃত্বের প্রাসঙ্গিকতা
    কর্মক্ষেত্রে নেতৃত্বকে সামনের দিকে এগিয়ে নেয়ার ক্ষেত্রে এখানে আলোচিত হয়েছে।

    আট. নেতৃত্বের উন্নয়ন
    এই পর্বে লেখক চমতকারভাবে নেতৃত্বের উন্নয়নে করণীয় সম্পর্কে আলোচনা করেছেন। বিশেষকরে মা-বাবার করণীয় ভাল লেগেছে।

    নয়. সঙ্কটে করণীয় ও ভাল নেতৃত্বের লক্ষণ
    এই পর্বটি “আট” নম্বর পবেই আলোচনা করতে পারতেন। কিন্তু তিনি আলাদা আলোচনা মাধ্যমে আমার মনে হয় “সঙ্কটকালীন মূহূর্তে” একজন নেতার সঙ্কট থেকে বাঁচার উপায়টি বিশেষভাবে বুঝাতে চেয়েছেন। এটা বেশ ভাল প্রচেষ্টা।

    দশ. বিবিধ
    এই পর্বটিও দারুন! বেশ চমতকার মোটিভেশনাল আলোচনা এখানে রয়েছে।

    এগার. সমাপ্তি
    এই পর্বে লেখক নেতৃত্ব সম্পর্কে মনীষীদের অমিয় বানীসমূহকে একত্রিত করেছেন। যা খুবই চমতকার।
    আর তার এই বইটি লেখার জন্য যে সকল বইসমূহ পড়তে হয়েছে, তার একটি তালিকা দিয়েছেন। সর্বমোট ৫৪ টি বইয়ের তালিকা দিয়েছেন, যা তিনি “উল্লেখযোগ্য কয়েকটি” বলে আখ্যায়িত করেছেন।

    আমার কথা :
    সর্বসাকুল্যে আমি বলতে চাই, নেতৃত্বের উপর এত সংক্ষেপে এত তথ্যবহুল বই আমি আর পড়ি নাই। আপনি ভেবে দেখেছেন কি “আপনিও একজন নেতা”? সুতরাং নেতৃত্বকে পোক্ত করতে হলে এই বই আপনার একটি রসায়নযোগ্য উপাদান হতে পারে।

    মনে রাখবেন “একজনের সারাজীবনের অভিজ্ঞতা যদি আপনি সঞ্চয় করতে পারে কয়েক ঘণ্টায়, তাহলে আপনিও সেই অভিজ্ঞতার মালিক হলেন। অর্থাৎ অল্প সময়ে অনেক অভিজ্ঞতা আপনার ভাণ্ডারে জমা হলো”। সুতরাং পড়ুন, পড়ুন এবং পড়ুন।

  • kamrul hasan says:

    নেতৃত্বের প্রাথমিক বোঝাপড়া
    ড. মনির উদ্দিন আহমেদ (বাদল) (Monir Uddin Ahmed Badal)
    প্রকাশক:- গার্ডিয়ান পাবলিকেশন
    গায়ের দাম:- ২৫০/-

    নেতা ও নেতৃত্ব নৌকার মাঝির সাথে তুলনীয়। মাঝি বিহীন নৌকা যেমন গন্তব্য পৌছাতে অক্ষম তেমনি সং নেতৃত্ব বিহীন সমাজও সঠিকভাবে পরিচালিত হতে পারে না। একটি সুন্দর পৃথিবীর জন্য অপরিহার্য শর্ত হলো কার্যকর ও অনন্য নেতৃত্ব।

    নেতা যা করেন এবং যা করা উচিত, তা করার যোগ্যতা ও সামর্থ্যের নামই হচ্ছে নেতৃত্ব। মানুষকে সুনির্দিষ্ট লক্ষ্যে প্রভাবিত বা পরিচালিত করার যোগ্যতাই নেতৃত্ব। দায়িত্ব ও সামর্থ্যের দিক থেকে আমরা সবাই নেতা। তবে আমাদের সমাজ মনে করে নেতা মানি রাজনৈতিক নেতা। আসলে কি তাই…?
    যদি প্রশ্ন করা হয় শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের প্রধান কি নেতা নয়..? উত্তর আসবে হ্যাঁ। তেমন ভাবে ডাক্তার যিনি হাসপাতাল চালান, তিনি হাসপাতালের নেতা। যিনি পরিবার চালান, তিনি পরিবারের নেতা। তার মানি আমরা সবাই নেতা, কারণ আমরা সবাই কোথাও না কোথাও নেতৃত্ব দেই।

    আপনি কোন মানের নেতা, তা নির্ভর করবে কত সুন্দর করে আপনি কাজগুলো বাস্তবায়ন করেছেন তার উপর। যেমন আমাদের বাসা-অফিস কতটা পরিস্কার হবে, তা নির্ভর করবে আমরা কত ভালোভাবে পরিচ্ছন্ন কর্মীর মাধ্যমে কাজটা করিয়ে নিতে পারছি তার উপরে। দারোয়ান ঠিকমত কাজ করবে কিনা বা বাবুর্চি ঠিকমত রান্না করবে কিনা, তা নির্ভর করবে তাদেরকে কাজগুলো সঠিকভাবে করার ক্ষেত্রে আমরা প্রভাবিত করতে পারছি কিনা, তার উপর।

    যে নেতার লক্ষ্য যত বড়, যত বেশী মানুষের আশা ও আকাঙ্ক্ষাকে ধারণ করে, সে তত উঁচুমানের নেতা।
    নেতার সিদ্ধান্ত ও কাজকর্মের কারণে যদি বেশী সংখ্যক মানুষের জীবন উন্নত হয়, তবে তিনি ভালো নেতা। আর যদি বেশী সংখ্যক মানুষের জীবন বিষিয়ে উঠে, তাহলে তিনি ভালো নেতা নয়।

    ভালো নেতা হতে হলে ভালো অনুসারী হওয়ার বিকল্প নেই। কারণ নেতাকে যদি ভালোভাবে অনুসরণ করা যায়, তাহলে নেতৃত্বের গুনাবলী সহজেই অর্জন করা যায়।

    ♦নেতার মৌলিক দায়িত্ব ৩টি
    ১.লক্ষ্য অর্জন করা।
    ২.ঐক্য প্রতিষ্ঠা করা।
    ৩.অনুসারীর প্রয়োজন পূরণ করা।

    ♦নেতৃত্বের উপাদান
    ১.গুণাগুণ:- ঘুম থেকে উঠে আবার ঘুমাতে যাওয়া পর্যন্ত যে নেতা যত বেশি সুশৃঙ্খল, তার উজ্জ্বল নেতৃত্বের সম্ভাবনাও প্রবল।
    ২.দৃষ্টিভঙ্গি
    ৩.দক্ষতা
    ৪.মূল্যবোধ

    নেতৃত্ব হচ্ছে এক ধরণের প্রভাব, যার উৎস হচ্ছে
    ১.পদ
    ২.জ্ঞান
    ৩.সম্পর্ক
    ৪.অর্থ
    ৫.চরিত্র
    ♦♦নেতৃত্বের মান উন্নায়নে করণীয় :-
    ১.Leaders are readers.
    ২.শুনতে হবে।
    ৩.পর্যবেক্ষণ করতে হবে।

    সবমিলে অসাধারণ একটি বই। নেতৃত্ব বিষয়টা এমনিতেই কঠিন, তার উপরে খুব সহজ-সরল ভাষায় চমৎকার একটি বই লেখেছেন লেখক। সবার পড়া উচিৎ,কারণ আমরা সবাই নেতা! সুতরাং আমাদের নেতৃত্ব বিকাশে বইটি কার্যকর হবে বলে বিশ্বাস করছি।

    আমার মন্তব্য :-
    ♦”নেতৃত্বের প্রভাব উৎস ও নেতৃত্বের স্তরসমূহ ” এ দুইটি অধ্যায়কে একটি করে আলোচনা করা যেতো বলে মনে করি।
    ♦ডায়নামিক বা গতিশীল নেতৃত্ব নিয়ে অালোচনা থাকলে ভালো হতো বলে মনে করি।

    কামরুল হাসান
    উত্তরা,ঢাকা।

  • Shariful Islam says:

    আমি এখনও বইটা সংগ্রহ করতে পারি। তবে এখানে যা পড়েছি খুব ভাল লেগে।

  • Leave a Reply

    Your email address will not be published. Fields with * are mandatory.

    গার্ডিয়ান পাবলিকেশন © ২০১৭-১৯
    Developed by: Al-Amin Firdows